কুরআন ও আধুনিক বিজ্ঞান/ভ্রূণবিদ্যা/সুলালাহ (তরল পদার্থ) থেকে মানুষ সৃষ্ট

উইকিবই থেকে
পরিভ্রমণে চলুন অনুসন্ধানে চলুন

অতঃপর তিনি তার বংশধর সৃষ্টি করেন তুচ্ছ তরল পদার্থের নির্যাস থেকে। [৩২:০৮]


আরবি শব্দ সুলালাহ শব্দের অর্থ পূর্ণাঙ্গতা বা সর্বোত্তম অংশ। আমরা এখন জানতে পেরেছি যে মানুষের দ্বারা উৎপাদিত কয়েক মিলিয়নের মধ্যে শুধুমাত্র একক শুক্রাণু যা ডিম্বাণুকে ভেদ করে নিষিক্তকরণের জন্য প্রয়োজন। কয়েক মিলিয়নের মধ্যে সেই একটি শুক্রাণুকে কুরআনে সুলালাহ বলা হয়েছে। সুলালাহ মানে তরল থেকে মৃদু নিষ্কাশন। তরল বলতে পুরুষ এবং মহিলা উভয় জীবাণুযুক্ত তরলকে বোঝায় যেখানে গ্যামেট থাকে। ডিম্বাণু এবং শুক্রাণু উভয়ই নিষিক্তকরণের প্রক্রিয়ায় তাদের পরিবেশ থেকে আলতোভাবে বের করা হয়।


ভ্রূণবিদ্যা 50% developed

নুতফাহ থেকে মানব সৃষ্ট 100% developedসুলালাহ থেকে মানুষ সৃষ্ট 100% developedমানুষ নুতফাতুন আমশাজ থেকে সৃষ্ট 100% developedলিঙ্গ নির্ধারণ 100% developedঅন্ধকারের তিনটি পর্দা দ্বারা ভ্রূণ সুরক্ষিত 100% developedভ্রূণের পর্যায় 50% developedভ্রূণ আংশিকভাবে গঠিত এবং আংশিকভাবে অগঠিত 0% developedশ্রবণ এবং দৃষ্টি সংবেদন 0% developed