উইকিশৈশব:বর্ণমালায় প্রাণীজগৎ

উইকিবই থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
বর্ণমালায় প্রাণীজগৎ
বর্ণমালায় প্রাণীজগৎ.jpg



স্বরবর্ণ
-- --
ব্যঞ্জনবর্ণ
-- ড় ঢ় য় --

<তাক "প্রাক-প্রাথমিক" খুঁজে পাওয়া যাচ্ছে না।>


পরিচ্ছেদসমূহ

বর্ণমালায় প্রাণীজগৎ[সম্পাদনা]

ছড়া লেখক: সুকান

স্বরবর্ণ

অজগর[সম্পাদনা]

অজগর ছোটো নয়।
তাকে দেখে ভয় হয়!

আরশোলা[সম্পাদনা]

আরশোলা ওড়ে যত।
ছোটো বড়ো থতমত!

ইগল[সম্পাদনা]

ইগলটা উড়ে যায়
ইঁদুরেরা ভয় পায়

ঈক্ষণ (চোখ)[সম্পাদনা]

ঈক্ষণেই দেখা সব।
মানুষের কলরব!

উট[সম্পাদনা]

উট চলে হেলেদুলে।
উঁচু হয়ে মুখ তুলে!

ঊর্ণনাভ (মাকড়সা)[সম্পাদনা]

ঊর্ণনাভ ঘুরে ঘুরে।
জাল বোনে কাছে দূরে!

ঋষি[সম্পাদনা]

ঋষি যায় বন দিয়ে।
ফুল আর ফল নিয়ে!

এমু পাখি[সম্পাদনা]

এমু পাখি গোটা কয়।
দেখে খুব মজা হয়!

ঐরাবত[সম্পাদনা]

ঐরাবত এল ওই।
দেখে ভয়ে ভীত হই!

ওরাংওটাং[সম্পাদনা]

ওরাংওটাং লাফ দিল।
ফলটাকে লুফে নিল!

ঔদরিক (পেটুক)[সম্পাদনা]

ঔদরিক ভরা পেটে।
চলে আসে হেঁটে হেঁটে!

ব্যঞ্জনবর্ণ

কোকিল[সম্পাদনা]

কোকিলের মিঠে গলা।
ডেকে ওঠে ভোরবেলা!

খরগোশ[সম্পাদনা]


খরগোশ ছুটে যায়।
খোকাখুকু মজা পায়!

গোরু[সম্পাদনা]

গাই গোরু দুধ দেয়।
মানুষেরা খেয়ে নেয়!

ঘোড়া[সম্পাদনা]

ঘোড়াটাকে বলে 'হয়'।
ঘোড়া দেখে খোঁড়া নয় !

হাঙর[সম্পাদনা]

হাঙরের বড়ো দাঁত।
করে যায় উৎপাত!

চড়াই[সম্পাদনা]

চড়াইরা গেল কই?
ঘুলঘুলি বাসা ওই!

ছাগল[সম্পাদনা]

ছাগলটা ভয়ে মরে।
এই বুঝি বাঘে ধরে!

জিরাফ[সম্পাদনা]

জিরাফের মুখ ভার।
আওয়াজ নেই তার!

ঝিঁঝিপোকা[সম্পাদনা]

ঝিঁঝিপোকা ঝাঁকে ঝাঁকে।
রাত এলে তারা ডাকে!

আঞ্জিনেয়[সম্পাদনা]

আঞ্জিনেয় এঁকেবেঁকে।
চলে এল কোথা থেকে!

টিয়া[সম্পাদনা]

টিয়া পাখি কথা বলে।
দল বেঁধে উড়ে চলে!

ঠোঁট[সম্পাদনা]

ঠোঁট দিয়ে পাখি খায়।
ঠোঁট দেখে চেনা যায়!

ডাহুক[সম্পাদনা]

ডাহুকের দল যায়।
পোকা মাছ খুঁটে খায়!

ঢোঁড়াসাপ[সম্পাদনা]

কিল বিল ওরে বাপ!
ভয় নেই ঢোঁড়াসাপ!!

হরিণ[সম্পাদনা]

হরিণের ভয় আছে।
সিংহেরা ধরে পাছে!

তিমি[সম্পাদনা]

ইয়া বড়ো জুড়ি নেই!
তিমি থাকে সাগরেই!!

থাবা[সম্পাদনা]

থাবা দিয়ে যায় চেনা।
ওটা চিতাবাঘ কিনা!

দোয়েল[সম্পাদনা]

বাংলার জাতীয় পাখি।
দোয়েলকে চিনে রাখি!

ধনেশ[সম্পাদনা]

ধনেশের বড়ো ঠোঁট।
বনে তারা একজোট!

নকুল[সম্পাদনা]

নকুলের কোথা বাড়ি?
সাপেদের সাথে আড়ি!

পাপিয়া[সম্পাদনা]

পাপিয়ারা ডেকে যায়।
'চোখ গেল' করে হায়!

ফিঙে[সম্পাদনা]

কুচকুচে কালো ফিঙে।
গোরু দেখে বসে শিঙে!

বাঘ[সম্পাদনা]

জাতীয় পশুর নাম।
বাঘ এরা বনে ধাম!

ভালুক[সম্পাদনা]

ভালুকের খেলা দেখো।
চেহারাটা মনে রেখো!

ময়ূর[সম্পাদনা]

ভারতের জাতীয় পাখি।
ময়ূরকে বলে 'শিখী'!

যমজ[সম্পাদনা]

খেলা দেখে হাসাহাসি।
যমজেরা পাশাপাশি!

রাজহাঁস[সম্পাদনা]

রাজহাঁস জলে চলে।
সারি বেঁধে দলে দলে!

লেমুর[সম্পাদনা]

লেমুরেরা নিশাচর।
ঝোপঝাড়ে বাঁধে ঘর!

শেয়াল[সম্পাদনা]

রাত এলে থেকে থেকে।
শেয়ালেরা ওঠে ডেকে!

ষাঁড়[সম্পাদনা]

ষাঁড় আসে বাজারেতে।
শাকপাতা রোজ খেতে!

সারস[সম্পাদনা]

সারসের দল যায়।
নীল আকাশের গায়!

হনুমান[সম্পাদনা]

করে নাও অনুমান।
এটা হল হনুমান!

ড়সড়ক[সম্পাদনা]

সড়কের পথ ধরে।
মানুষেরা ঘরে ফেরে!

ঢ়আষাঢ়[সম্পাদনা]

আষাঢ়ের মেঘ এলে।
চাষিদের হাসি খেলে!

য়হায়না[সম্পাদনা]

হায়নার দল আসে।
শিকারের অভিলাসে!

উৎসব[সম্পাদনা]

খুশি আসে উৎসবে।
ইদ এলে মিলি সবে!

রং[সম্পাদনা]

খোকাখুকু এই বেলা।
রং নিয়ে করে খেলা!

দুঃখ[সম্পাদনা]

সুখ দুঃখ কত কাছে।
মানুষের সাথে আছে!

প্যাঁচা[সম্পাদনা]

প্যাঁচা হল নিশাচর।
কোটরেতে বাঁধে ঘর!